স্কুল গ্রন্থাগার অনুচ্ছেদ [৪টি] - (২০২৩ আপডেট)

স্কুল গ্রন্থাগার অনুচ্ছেদ, স্কুল গ্রন্থাগার অনুচ্ছেদ রচনা, (স্কুল গ্রন্থাগার অনুচ্ছেদ Class 1, 2, 3, 4, 5, 6, 7, 8, 9, 10) (স্কুল গ্রন্থাগার অনুচ্ছেদ ১ম, ২য়, ৩য়, ৪র্থ, ৫ম, ৬ষ্ঠ, ৭ম, ৮ম, ৯ম, ১০ম শ্রেণি) স্কুল গ্রন্থাগার অনুচ্ছেদ নিচে দেওয়া হয়েছে। 100 - 150 শব্দ, লিখন, ২০২৩, ক্লাস ১০, jsc, ssc, hsc)

স্কুল গ্রন্থাগার অনুচ্ছেদ

"স্কুল গ্রন্থাগার অনুচ্ছেদ"

শিক্ষ্ইা জীবন, জীবনই শিক্ষা। এটি মানুষের জ্ঞানতৃষ্ণা নিবারণে সহায়তা করে। একটি গ্রন্থাগার বিদ্যালয়ের অবিচ্ছেদ অংশ। আমাদের বিদ্যালযের নাম সোনাপুর উচ্চ বিদ্যালয়। আমাদের বিদ্যালয়ে একটি বড় গ্রন্থাগার রয়েছে। এটি বিদ্যালয়ের একটি ভিন্ন ভবনে অবস্থিত। এটি ভালোভাবে সাজানো রয়েছে। আমাদের গ্রন্থাগারে তিনটি আলাদা কক্ষ রয়েছে। দুটি কক্ষে শিক্ষার্থীরা বসে বসে বই, সংবাদপত্র পড়ার ব্যবস্থা রয়েছে। আমাদের বিদ্যালয়ের গ্রন্থাগারে প্রচুর বই রয়েছে। বই গুলো বড় বড় আলমারিতে একটি শৃঙ্খল পদ্ধতিতে সংরক্ষিত আছে। আমাদের বিদ্যালয়ের গ্রন্থাগারে প্রায় পাঁচ হাজার বই আছে। শুধুমাত্র শিক্ষার্থীরা বই গুলো পড়তে পারে। তারা দুটি তিন সপ্তাহের জন্য দু’একটি বই গ্রন্থাগার কার্ড ও রেজিস্টারে উল্লেখ করে বাড়ি নিয়ে যেতে পারে। নির্দিষ্ট সময় পড়ে বাড়ি দেয়া বই গ্রন্থাগারে ফেরত দিতে হয়। গ্রন্থাগারটি বিদ্যালয়ের কার্যদিবসে সকাল ৯টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত খোলা থাকে। এটি আমাদের পড়ার অভ্যাস গড়ে তোলে এবং জ্ঞান বৃদ্ধি করে।

"স্কুল গ্রন্থাগার অনুচ্ছেদ Class 6"

বই হচ্ছে জ্ঞানের ভান্ডার তাই প্রতিটি স্কুলে গ্রন্থাগার হচ্ছে জ্ঞান ভান্ডারের একটি স্থান বা উৎস। ছাত্রছাত্রীদের এর প্রয়োজন হয় মূলত তাদের জ্ঞান সমৃদ্ধ করার জন্য। আমাদের স্কুলে একটি পাঠাগার আছে এবং এতে বইয়ের ভালো সংগ্রহ আছে। আমরা পাঠাগার ব্যবহার করি শুধু পড়ালেখা বা নোট প্রস্তুতির জন্য নয় অবসর কাটানোর জন্যেও। স্কুলের পাঠাগার দ্বিতীয় তলায় অবস্থিত। এটি বেশ প্রশস্ত এবং বায়ু চলাচলের ব্যবস্থাও ভালো। জ্ঞানের বিভিন্ন শাখা যেমন সাহিত্য, ইতিহাসে, বিজ্ঞান, বাণিজ্য, ভূগোল ইত্যাদি বিষয়ের বইয়ের ভালো সংগ্রহ আছে। প্রত্যেক ছাত্রের একটি লাইব্রেরি কার্ড আছে। একসাথে আমরা দুটো বই ধার করতে পারি। সাতদিনের জন্য সে বই রাখতে পারি। পাঠাগারে কঠোরভাবে শৃঙ্খলা মানা হয়। পাঠাগারের পরিবেশ শান্ত। আমাদের স্কুলের পাঠাগার জ্ঞান বৃদ্ধির ক্ষেত্রে বেশ সাহায্যকারী। এখানে আমাদের জন্য দৈনিক সংবাদপত্রও রাখা হয়। প্রত্যেক স্কুলেরই পাঠাগার থাকা উচিত। প্রতিটি স্কুলে লাইব্রেরী থাকা একান্ত প্রয়োজন।

"স্কুল গ্রন্থাগার অনুচ্ছেদ Class 7"

পাঠাগার এমন একটি স্থান যেখানে বিভিন্ন প্রকার বই, পত্রিকা, ম্যাগাজিন প্রভৃতি পাঠকদের জন্য রাখা হয়। বিভিন্ন গল্পের বই, উপন্যাস, কবিতা, মনীষীদের জীবনি, ম্যাগাজিন, সাহিত্য, ধর্মীয় বই ইত্যাদি স্কুলের গ্রন্থাগারে থাকা আবশ্যক। প্রধানত, শিক্ষার্থীদের জ্ঞান সমৃদ্ধ করার জন্য এটি দরকার। আমাদের স্কুলে একটি পাঠাগার আছে এবং এতে বইয়ের ভালো সংগ্রহ রয়েছে। আমরা পাঠাগার ব্যবহার করি শুধু পড়ালেখা বা নোট প্রস্তুতির জন্য নয় অবসর কাটানোর জন্যেও। স্কুলের পাঠাগারটি দ্বিতীয় তলায় অবস্থিত। এটি বেশ প্রশস্ত এবং বায়ু চলাচলের ব্যবস্থাও ভালো। জ্ঞানের বিভিন্ন শাখা যেমন সাহিত্য, ইতিহাস, বিজ্ঞান, বাণিজ্য, ভূগোল ইত্যাদি বিষয়ের ওপর বই রয়েছে। প্রত্যেক ছাত্রের একটি লাইব্রেরি কার্ড আছে। ড্যাপস্ স্কুলে একটি লাইব্রেরী আছে যেখানে ছোট শিক্ষার্থীরাও এসে বই পড়ে সময় কাটায়। কারণ বই হচ্ছে একমাত্র জ্ঞানের ভান্ডার। একসাথে আমরা দুটি বই ধার করতে পারি। সাতদিনের জন্য আমরা সে বই রাখতে পারি। পাঠাগারে কঠোরভাবে শৃঙ্খলা মানা হয়। পাঠাগারের পরিবেশ নিস্তব্ধ। আমাদের স্কুলের পাঠাগার জ্ঞান বৃদ্ধির ক্ষেত্রে বেশ সহায়ক। এখানে আমাদের জন্য দৈনিক সংবাদপত্রও রাখা হয়। প্রত্যেক স্কুলেরই একটি পাঠাগার থাকা উচিত।

"স্কুল গ্রন্থাগার অনুচ্ছেদ Class 9 - 10"

সাধারণত স্কুলের গণ্ডির মধ্যে উপযুক্ত স্থানে একটি স্কুল গ্রন্থাগার প্রতিষ্ঠিত হয়। সাধারণত, একটি স্কুল গ্রন্থাগারে বিভিন্ন বিষয় এবং প্রসঙ্গের ওপর বইয়ের বিশাল সংগ্রহ থাকে। যাহোক, একটি স্কুল গ্রন্থাগারের বেশির ভাগ বই হচ্ছে পাঠ্যপুস্তক সংক্রান্ত। প্রায় প্রতিটি বিষয়ের ওপর বই থাকে। এটিতে জ্ঞানের বিভিন্ন শাখা যেমন- সাহিত্য, ইতিহাস, বিজ্ঞান, বাণিজ্য, ভূগোল, ভ্রমণ, জীবনী প্রভৃতি বিষয়ের ওপর বই রয়েছে। বিষয় অনুযায়ী বইগুলো আলমারি এবং তাকগুলোতে সুন্দর করে সাজানো থাকে। সাধারণত শিক্ষক এবং শিক্ষার্থীদের জন্য গ্রন্থাগার সংলগ্ন একটি পাঠকক্ষ থাকে। একজন গ্রন্থাগারিক গ্রন্থাগার পরিচালনা ও দেখাশোনা করেন। একটি স্কুল গ্রন্থাগারের পরিবেশ পাঠকদের জন্য সত্যিই স্বাচ্ছন্দ্যময়। সেখানে পিন-পতন নীরবতা বজায় রাখা হয়। স্কুল গ্রন্থাগার একটি স্কুলের গুরুত্বপূর্ণ অংশ। আগের রাজ্যে এটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। এটি শিক্ষার্থীদের শিক্ষার ক্ষেত্রে বৃহত্তর সুযোগ প্রদান করে। গ্রন্থাগারে নিয়মিত পড়াশোনার মাধ্যমে একজন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় ভালো করাতে পারে যা চূড়ান্তভাবে তাকে সাফল্যের চূড়ায় পৌঁছে দিতে পারে। শিক্ষার্থীদের গ্রন্থাগারের যথাযথ ব্যবহার শেখানো হয়, তাদের বই সম্পর্কে ধারনা দেওয়ার জন্য এবং শান্তভাবে পড়াতে তাদের সহায়তা করার জন্য গ্রন্থাগারে সহায়তা প্রদান করা হয়।

Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url